কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্স কি? কেন পড়বেন বিস্তারিত ২০২৩

কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্সঃ আজকের আর্টিকেল সকল এসএসসি বা এইসএসসি পাস করা বন্ধুদের জন্য Computer Diploma Course করা বিষয় নিয়ে আলোচনা করব। আজকের ব্লগের এই সম্পূণ্য পোষ্টি পড়ে বিস্তারিত জানতে পারবেন।

কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্স কি, কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্স, Web designing, Computer Diploma Courses, ডিজিটাল মার্কেটিং, Diploma, ডেভেলপমেন্ট ডিপ্লোমা, ডিপ্লোমা,Diploma in Computer Engineering, ৩ বছর মেয়াদী কম্পিউটার ডিপ্লোমা, ডিপ্লোমা কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ারদের বেতন, কম্পিউটার ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারদের সরকারি চাকরি, ডিপ্লোমা ইন কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ারিং, কম্পিউটার ডিপ্লোমা বই, ৬ মাস মেয়াদী কম্পিউটার ডিপ্লোমা,What is Computer Diploma Course, Diploma in Computer Engineering, 3 years Computer Diploma, Salary of Diploma Computer Engineers, Computer Diploma Engineers Govt Jobs, Diploma in Computer Engineering, computer diploma book, 6 Month Computer Diploma,



অধিকাংশ ছাত্র-ছাত্রীদের লক্ষ্য তাদের পড়াশোনা শেষ করে ভালো চাকরি পাওয়া। বর্তমান সময়ে সরকারি কিংবা বেসরকারি চাকরি পেতে হলে কম্পিউটার সম্পর্কে জ্ঞান রাখা প্রয়োজন। শিক্ষার্থীদের যেকোনো কম্পিউটার কোর্সের সার্টিফিকেট থাকলে সে খুব সহজে ভালো চাকরি পাবে। এই ডিপ্লোমা কোর্সে আছে সার্টিফিকেট কম্পিউটার কোর্স এবং ডিপ্লোমা কম্পিউটার কোর্স

দ্বাদশ পাশ করার পর শিক্ষার্থীরা সাধারণত ডিপ্লোমা কম্পিউটার কোর্সে ভর্তি হয়। আজকের আর্টিকেলে আমি কিছু ডিপ্লোমা কম্পিউটার কোর্স সম্পর্কে জানাবো যেগুলো শিক্ষার্থীরা দ্বাদশ শ্রেণির পর করতে পারবে।

 

**কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্স কি? কেন পড়বেন বিস্তারিত ২০২৩**

 #What is Computer Diploma Course?

কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্স

 

বর্তমান সময়ে যেকোনো চাকরির জন্য কম্পিউটার সম্পর্কে জ্ঞান থাকা যেন আবশ্যক হয়ে পড়ছে। কেউ যদি কোনো প্রাইভেট সেক্টরে কাজ করতে যায় সেখানেও তাকে কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্সের সার্টিফিকেট দেখাতে হবে। 

 

অন্যদিকে সরকারি চাকরির ক্ষেত্রেও কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্সের সার্টিফিকেট দেখাতে হয় এবং কম্পিউটার এর উপর পরীক্ষা দিতে হয়। তাই শিক্ষার্থীরা নিজেদের ভালো ক্যারিয়ার গড়ার জন্য যেকোনো কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্সে করে নিতে পারে। 

 

Computer Diploma Courses নিম্নে দেওয়া হল –

 

  1. Diploma in Animation & VFX
  2. Diploma in Digital Marketing 
  3. Diploma in Model Application Development 
  4. Diploma in Web Designing & Development 
  5. Diploma in Software Engineering 
  6. Diploma in Hardware Engineering
  7. Diploma in Graphics Designing
  8. Computer Aided Design & Drawing 

 

এবার চলুন পরপর ডিপ্লোমা কোর্স গুলো সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক-

 

অ্যানিমেশন & বিএফএক্সে ডিপ্লোমা 

অ্যানিমেশন কোর্স কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্সের একটি প্রধান অংশ হয়ে দাঁড়িয়েছে। এটি মূলত গ্রাফিক্সেরই একটি অংশ। অনেক শিক্ষার্থীরা কম্পিউটারের এই অ্যানিমেশন কোর্সটিকে স্পেশালাইজেশন হিসেবে বেছে নেয়।

 

এই কোর্সটি ১ বছর মেয়াদি ডিপ্লোমা কোর্স। বর্তমানে এটি টিভিতে কার্টুন অ্যানিমেশম ইত্যাদিতে ব্যবহৃত হয়। মুভিতে ভিজুয়াল ইফেক্টের জন্য ভিএফএক্স এবং অ্যানিমেশন ব্যবহার করা হয়।

 

ভিএফএক্স Professional Freelance, VFX Expert, Film Animationist, Trainer etcর মতো এই কোর্সের পর অনেকগুলো কাজ পাওয়া যায়। বর্তমানে  এটির চাহিদা অনেক।

 

ডিজিটাল মার্কেটিং ডিপ্লোমা 

 

Diploma in Digital Marketing একটি বিশাল ক্ষেত্র। এটি কম্পিউটার কোর্সের সবচেয়ে অনন্য কোর্স। কন্টেন্ট রাইটিং, ডিজিটাল মার্কেটিং, ইমেইল মার্কেটিং এসব ডিজিটাল মার্কেটিং এর আওতায় পড়ে। 

 

ব্যবসা ক্ষেত্রের জন্য ডিজিটাল মার্কেট অনেক ভালো। আপনারা যদি কোনো অনলাইন কাজের সাথে যুক্ত হন যেমন ব্লগিং। তবে আপনার ডিজিটাল মার্কেটিংয়ে ডিপ্লোমা করা খুবই উপকারী হবে। এই কোর্সটি করার পর ডিজিটাল মার্কেটার, সোশ্যাল মিডিয়া ম্যানেজার ইত্যাদি কাজের অফার পাওয়া যায়৷ এছাড়া এই কোর্সটি করার পর ফ্রিল্যান্সিংও করা যাবে।

 

মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন ডেভেলপমেন্ট ডিপ্লোমা 

বর্তমানে স্মার্ট ফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা অসংখ্য (Diploma in Mobile App Development) এই স্মার্ট ফোন ব্যবহার নিয়ে সকলে সচেতন। দিনদিন মোবাইল অ্যাপ্লিকেশনের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। স্বল্প মেয়াদি মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন ডেভেলপমেন্ট ডিপ্লোমা কোর্সটি হতে পারে ৬ মাসের। 

 

এটি কম্পিউটার সম্পর্কীয় ক্যারিয়ারের একটি অন্যতম ক্ষেত্র। এই ডিপ্লোমা কোর্সটি সম্পূর্ণ করার পর শিক্ষার্থীরা অ্যাপ্লিকেশন ডিজাইনার, অ্যাপ্লিকেশন ডেভেলপার, উদ্যোক্তা ইত্যাদি হিসেবে কাজ করতে পারবে।

 

ওয়েব ডিজাইনিং অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট ডিপ্লোমা 

 

কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্সের এটি একটি ভালো অপশন। এটি সাধারণ ৩/৪ মাসের একটি ডিপ্লোমা কোর্স। এই কম্পিউটার কোর্সে কেবলমাত্র ওয়েবসাইট তৈরি এবং রক্ষণাবেক্ষণ শেখানো হয়।

 

এই কোর্সটি করার পর ওয়েব ডিজাইনার, ওয়েব ডেভেলপার এবং গ্রাফিক্স ডিজাইনের মতো কাজ করা যায়।

 

সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং ডিপ্লোমা 

 

Diploma in Software Engineering করার পর আপনাদের প্রথমত কম্পিউটার প্রোগ্রামিং এর উপর দক্ষ হতে হবে। আপনি কেবল কম্পিউটার ভাষা ব্যবহার করে সফটওয়্যার ডেভেলপার করতে পারবেন। এই কোর্সটি শুধুমাত্র দীর্ঘমেয়াদী ডিপ্লোমা কোর্সের জন্য পরামর্শ করা হয়। এই কোর্সটি করার ফলে শিক্ষার্থীরা ভবিষ্যতে ভালো কোম্পানিতে কাজ করতে পারবে।

 

হার্ডওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং ডিপ্লোমা 

 

Diploma in Hardware Engineeringকম্পিউটারের সফটওয়্যার এর পাশাপাশি হার্ডওয়্যার এর জ্ঞান রাখা জরুরি। এটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ডিপ্লোমা কোর্স। হার্ডওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং ডিপ্লোমা কম্পিউটার কোর্স কম্পিউটার হার্ডওয়্যার যেমন- মনিটর, সিপিইউ ইত্যাটির সাথে সম্পর্কিত।

 

হার্ডওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং ডিপ্লোমা কোর্সটি করার পর ক্যারিয়ারের অনেকগুলো অপশন পাওয়া যায়।

 

গ্রাফিক্স ডিজাইন ডিপ্লোমা 

 

ক্রিয়েটিভ শিক্ষার্থীদের জন্য কম্পিউটার Diploma in Graphics Design কোর্সটি হতে পারে সেরা অপশন। বর্তমান সময়ে গ্রাফিক্স ডিজাইন অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ ক্ষেত্র। গ্রাফিক্স ডিজাইন ডিপ্লোমা কোর্সটি করার পর শিক্ষার্থীরা গ্রাফিক্স ডিজাইনার হিসেবে কাজ করতে পারবে।

 

Computer Aided Design & Drawing – কম্পিউটার এডেড ডিজাইন ও ড্রয়িং

 

এই কোর্সটি কম্পিউটারের কারিগরি শিক্ষার সাথে সংশ্লিষ্ট। কারিগরি ক্ষেত্র আগ্রহী শিক্ষার্থীরা কম্পিউটারের এই কোর্সটি করতে পারে। মেকানিলক্যাল বা ইলেক্ট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং এর শিক্ষার্থীরাও এই কোর্সটি করতে পারবে। এই কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্স থেকে কম্পিউটারে ড্রয়িং, ডিজাইনিং শেখানো হয়। যা অনেক ক্ষেত্রে ব্যবহৃত হয়।

 

এই ছিল প্রধান কয়েকটি Computer Diploma Course। আজকের আর্টিকেলে আমি কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্স সম্পর্কে আলোচনা করেছি। বর্ণিত কম্পিউটার ডিপ্লোমা কোর্সগুলো করে শিক্ষার্থীরা ভালো কাজে যোগ দিতে পারবে। আজকের আর্টিকেল টি আপনাদের কেমন লেগেছে তা অবশ্যই আমাদের কমেন্ট বক্সে জানাবেন। 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *